“শত কবির কবিতা” নিয়ে বই, থাকতে পারে আপনার একটি কবিতা

বইটি “শত কবির কবিতা” নামে বের হবে। সমসাময়িক একশোজন কবির কবিতা থাকবে বলেই এরকম নামকরণ। মুক্তি প্রকাশনীর উদ্যোগে এবং প্রকাশে, ‘অাঠারোর প্রযোজনায় বইটি বের হবে।

যে কারণে এরকম একটি বই বের করা হবে:

১। প্রতিশ্রুতিশীল কবিদের একটি কমন প্লাটফরম তৈরি করা;

২। পাঠকদের কাছে অনেক কবির কবিতা একসাথে পাঠানো, তাহলে তারা সহজে তাদের পছন্দের কবিকে খুঁজে নিতে পারবে। কারণ, ‘বইটি কেমন হবে’ এই ঝুঁকিটি নিতে চায় না বলেই পাঠক এখন কবিতার বই কেনে না। আমাদের বিশ্বাস একশোজন কবিকে এক মলাটে জায়গা দিলে বইটি অনেকে কিনবে;

৩। একশোজনেই বইটি নিজের মনে করবে, ফলে সবাই বইটি সমানভাবে প্রচার করবে, এতে করে একটি জাগরণ ঘটবে;

৪। অর্থপূর্ণ কবিতাই আমরা শুধু ছাপতে চাই, ফলে বইটি সমাজের মানুষের কাছে একটি বার্তা পৌঁছে দেবে বলে মনে করি;

৫। কবিরা শক্তিশালী মানুষ, এরকম একশোজন কবি এক মলাটে থাকলে সে শক্তিটা নিশ্চয়ই কোনো শুভ কাজে লাগবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।

কবিতা প্রকাশের কিছু শর্ত আছে:

যদিও শর্তে আমরা বিশ্বাসী নই। কিন্তু বাস্তবতা বিবেচনায় কিছু বিষয় আমরা মাথায় রাখছি-

১। কবিতাটি বাংলাদেশের সংবিধান এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী হতে পারবে না;

২। কবিতাটিতে স্পষ্টত কোনো ধর্ম এবং সম্প্রদায়ের প্রতি পক্ষপাত থাকতে পারবে না;

৩। প্রাসঙ্গিক না হলে আঞ্চলিক ভাষার ব্যবহার যথাসম্ভব পরিহার করলে ভালো হয়;

৪। ‘গালি’ অনেক সময় কবিতায় ব্যবহৃত হয়, তবে এক্ষেত্রে আমরা নিরুৎসাহিত করছি, যেহেতু এটি একটি সম্মিলিত প্লাটফরম;

৫। কবিতাটি হতে হবে আট থেকে বিয়াল্লিশ লাইনের মধ্যে। সামান্য হেরফের হতে পারে।

নিয়মাবলী:

১। কবিতাটি ৩০ জুলাই ২০১৭-এর মধ্যে আমাদের কাছে পেঁৗছাতে হবে;

২। কবিতা সম্পাদনা করা যাবে কিনা–সেটি কবিতার নিচে আপনি লিখে দেবেন। আপনার একটি ছবি পাঠাবেন, এবং একশো শব্দে আপনার সংক্ষিপ্ত জীবনী, যেটি বইয়ের শেষে ছাপা হবে। ছবিটি জীবনীর সাথে যাবে এবং একশো জনের ছবি সজ্জিত করে বইয়ের প্রচ্ছদ তৈরি হবে, তাই ছবিটি আপনি পছন্দ করে পাঠাবেন;

৩। কবিতাটি পঁচিশ লাইনের মধ্যে হলে ৫০০টাকা এবং পঁচিশ লাইনের বেশি হলে ১০০০টাকা জমা দিতে হবে। বিনিময়ে আপনাকে পাঁচটি বই দেয়া হবে। টাকা অবশ্যই অগ্রীম দিতে হবে। টাকা নিজ দায়িত্বে পাঠাবেন;

৪। কবিতা পাঠানোর তারিখ বিবেচনায় বাছাই প্রক্রিয়ায় সেটি অগ্রাধিকার পাবে। একশোটি কবিতা মনোনিত হয়ে গেলে পরে কোনো ভালো কবিতা থাকলেও সেটি ফেরৎ পাঠানো হবে। অর্থাৎ, আমরা একসাথে সব কবিতা পড়ে দেখে নম্বর পদ্ধতিতে বাছাই করব না, একটার পর একটা পড়ে দেখা হবে, বাছাই কমিটির তিনজন সদস্যের দুইজনে মনোনিত করলে কবিতাটি মনোনিত হয়ে যাবে। এভাবে একশোটি কবিতা আমরা মনোনিত করব। একাধিক কবিতা পাঠানোর সুযোগ নেই;

৫। আপনার কবিতা মনোনিত না হলে আপনাকে টাকা ফেরৎ দেয়া হবে ৭দিনের মধ্যে।

প্রকাশকাল:

বইটি ৩০ সেপ্টম্বরের ২০১৭-এর মধ্যে প্রকাশিত হবে। তবে বিশেষ কারণে সর্বোচ্চ ১৫দিন দেরি হতে পারে। অক্টোবর ২০১৭ তে আমরা ঢাকায় বাংলা একাডেমিতে এবং খুলনায় বিএমএ মিলনায়তনে একটি প্রকাশনা উৎসব করব। একুশে বইমেলা ২০১৮ তে বাংলা একাডেমি বটতলায় আমরা একটি উন্মুক্ত প্রকাশনা উৎসব করব। এর আগে বিভিন্ন পত্রিকা এবং ব্লগে বইটির ওপর রিভিউ ছাপা হবে।

#বইটি বইমেলার যথেষ্ট আগে বের করতে চাই, কারণ, বইটি সম্পর্কে যাতে বইমেলার আগেই সারা দেশের মানুষ জেনে যায়। কিছু জানার থাকলে ফোন করতে পারেন। তবে “এটা করে কী হবে” ধরনের প্রশ্ন না করার জন্য আগাম ধন্যবাদ দিয়ে রাখছি।


যোগাযোগ:

দিব্যেন্দু দ্বীপ

dibbendudwip@gmail.com

০১৮৪ ৬৯ ৭৩২৩২

Like
Like Love Haha Wow Sad Angry
1
Share on FacebookTweet about this on TwitterShare on Google+Email this to someonePrint this page

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *